কাশির শব্দে করোনা শনাক্ত করবে কৃত্রিম যন্ত্র

বিজ্ঞাপন

করোনা শনাক্ত করার জন্য গবেষকেরা বিভিন্ন যন্ত্র উদ্ভাবনের চেষ্টা করছেন । যুক্তরাষ্ট্র ‘ফ্লুসেন্স’ নামে একটি কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তাযুক্ত যন্ত্র উদ্ভাবন করেছে, যন্ত্রটি কাশির শব্দ বিশ্লেষণ করে করোনা ভাইরাস হয়েছে কি না তা জানাবে।

যুক্তরাষ্ট্রের ইউনিভার্সিটি অব ম্যাসাচুসেটস আমহার্স্টের গবেষকেরা এ যন্ত্রটি আবিষ্কার করেছেন। যন্ত্রটি কাশির শব্দ ও ভিড়ের আকার রিয়েল টাইমে শনাক্ত করতে সক্ষম। ওই যন্ত্রে যে শব্দ ধারন হবে তা বিশ্লেষন করে সরাসরি করোনা ভাইরাস বা ফ্লুর মতো রোগ পর্যবেক্ষণ করা সম্ভব।

গবেষকেরা বলছেন, আধুনিক প্রযুক্তির কম্পিউটিং প্ল্যাটফর্ম স্বাস্থ্য নজরদারির ক্ষেত্রেও প্রয়োজনীয় টুল হিসেবে ব্যবহার করা যেতে পারে। এতে মৌসুমি ফ্লু বা অন্যান্য ভাইরাসজনিত শ্বাসযন্ত্রের সমস্যার পূর্বাভাস দিতে পারে। এর মাধ্যমে কোভিড-১৯ মহামারি বা সার্সের মতো ভাইরাস রোগের পূর্বাভাসও দেয়া যায়।

ভাইরাসজনিত মহামারিতে জনস্বাস্থ্য পর্যবেক্ষণের সরাসরি তথ্য পাওয়া এসব মডেল জীবন রক্ষাকারী হিসেবে কাজে লাগতে পারে বলে মনে করছেন তারা। এই তথ্য উত্সগুলো ফ্লু ভ্যাকসিন প্রচারের সময় নির্ধারণ, সম্ভাব্য ভ্রমণের বিধিনিষেধ, চিকিৎসা সরবরাহের বরাদ্দ নির্ধারণে সহায়তা করতে পারে।

গবেষণাসংক্রান্ত নিবন্ধ প্রকাশিত হয়েছে ‘প্রসিডিংস অব দ্য এসিএম অন ইন্টারঅ্যাকটিভ, মোবাইল, ওয়্যারেবল অ্যান্ড ইউবিকশাস টেকনোলজিস’ সাময়িকীতে।

এই নতুন উদ্ভাবিত পদ্ধতিতে ফ্লুর ট্রেন্ডের নিখুঁত পূর্বাভাস দেয়া যায়। ফ্লুসেন্স প্ল্যাটফর্মে সাশ্রয়ী দামের মাইক্রোফোন অ্যারে ও থার্মাল ইমেজিং ডেটা রাস্পবেরি পাই ও নিউরাল কম্পিউটিং ইঞ্জিনের মাধ্যমে প্রক্রিয়াজাত করা হয়। এতে অবশ্য কোনো ব্যক্তি শনাক্তকরণ তথ্য শনাক্ত করা হয় না।

গবেষকেরা প্রথমে পরীক্ষাগারে একটি কাশির মডেল তৈরি করেন। এরপর তারা অ্যালগরিদমকে প্রশিক্ষণ দিয়ে মানুষের থার্মাল ছবি তৈরির প্রক্রিয়া শেখান। এরপর তা গোনার জন্য বলেন।

গবেষকেরা তাদের তৈরি ফ্লুসেন্স ডিভাইসটি অভিধানের আকারের আয়ত ক্ষেত্রাকার বাক্সে রেখে তা চারটি স্বাস্থ্যসেবা কেন্দ্রের অপেক্ষাগারে বসান। ২০১৮ সালে ডিসেম্বর থেকে গত বছরের জুলাই মাস পর্যন্ত ফ্লুসেন্স সাড়ে তিন লাখ থার্মাল ইমেজ বিশ্লেষণ করে ও ২ কোটি ১০ লাখ অডিও নমুনা বিশ্লেষণ করে।

গবেষকেরা দেখেন, তাদের তৈরি যন্ত্রটি নিখুঁতভাবে দৈনন্দিন অসুস্থ হওয়ার হার পূর্বাভাস দিতে পারছে।


সংবাদ২৪/সাব্বির

বিজ্ঞাপন

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

আরও পড়ুন
Loading...
DMCA.com Protection Status