বিশেষ পর্যটন জোন হচ্ছে হাতিয়া ও নিঝুম দ্বীপ

বিজ্ঞাপন

ঢাকা: নেয়াখালির হাতিয়া ও নিঝুম দ্বীপকে ঘিরে বিশেষ পর্যটন জোন হিসেবে গড়ে তোলার কাজ করছে সরকার। ইতোমধ্যে সেখানে রেস্তোরা, কটেজ ও ক্রুজ ভেসেল সংগ্রহে প্রায় ৫০ কোটি টাকার একটি প্রকল্পের কাজ শুরু করেছে বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয়।

রোববার (৫জোনুয়ারি) বিকেলে জাতীয় সংসদ ভবনে অনুষ্ঠিত বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির বৈঠকে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

সংসদীয় কমিটির সভাপতি র আ ম উবায়দুল মোকতাদির চৌধুরীর সভাপতিত্বে বৈঠকে কমিটির সদস্য বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন প্রতিমন্ত্রী মো. মাহবুব আলী, ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন, তানভীর ইমাম এবং সৈয়দা রুবিনা আক্তার অংশগ্রহণ করেন।

কমিটি সূত্র জানায়, পর্যটন শিল্পের বিকাশে হাতিয়া ও নিঝুম দ্বীপকে ঘিরে নেওয়া প্রকল্প যথাযথভাবে বাস্তবায়নের তাগিদ দেওয়া হয়। একইসঙ্গে হবিগঞ্জ জেলা ও ব্রাক্ষ্মণবাড়িয়া জেলার বিজয়নগর এলাকায় ছোট রেস্ট হাউস নির্মাণসহ পর্যটন কেন্দ্র গড়ে তোলা য়ায় কি-না তা পরীক্ষা-নিরীক্ষার জন্য উদ্যোগ নিতে বলা হয়। এ ছাড়া কক্সবাজারের সমুদ্র সৈকত পরিচ্ছন্ন রাখার ব্যাপারে ব্যক্তি মালিকানার উদ্যোগে পেশকৃত প্রস্তাব বাস্তবায়নে পদক্ষেপ গ্রহণের সুপারিশ করা হয়।

বৈঠকে আরো জানানো হয়, কক্সবাজারে বাংলাদেশ পর্যটন করপোরেশনের পর্যটন হলিডে কমপ্লেক্সে অবস্থিত হোটেল প্রবাল ও উপালকে পাঁচ তারকামানের হোটেলে রুপান্তরের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। এ ছাড়া হোটেল লাবণীকে আন্তর্জাতিকমানের হোটেলে উন্নীত করার পরিকল্পনা গ্রহণ করা হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

Get real time updates directly on you device, subscribe now.

আরও পড়ুন
Loading...
DMCA.com Protection Status